আ’লীগে যোগদানের চেষ্টা করছেন ধর্ষক তুফানের বড় ভাই

বগুড়া প্রতিনিধি : বগুড়ায় কিশোরীকে ধর্ষণের পর মা ও মেয়ের মাথা ন্যাড়া করার বহুল আলোচিত ঘটনার মূলহোতা শ্রমিক লীগ নেতা (পরে বহিস্কৃত) তুফান সরকারের বড় ভাই যুবলীগের বহিস্কৃত নেতা মতিন সরকার ও তার বাহিনী আবারও সক্রিয় হয়ে উঠেছে। সম্প্রতি একটি হত্যা মামলায় জামিনে মুক্তি পাওয়ার পর পুণরায় রাজনীতিতে পুরোদমে সক্রিয় হয়ে উঠেছেন মতিন সরকার। জেলা শ্রমিকলীগের এক শীর্ষ নেতা এবং শহর আওয়ামী লীগের এক প্রভাবশালী নেতার হাতধরে মতিন সরকার এবার আওয়ামী লীগের রাজনীতির সাথে যুক্ত হচ্ছেন বলে গুঞ্জন শোনা যাচ্ছে। এ লক্ষ্যে তিনি রোববার বিকালে শত শত কর্মী-সমর্থক নিয়ে শহরে ব্যাপক শো-ডাউন করেছেন।

ছোট ভাই তুফান সরকার কর্তৃক কিশোরী ধর্ষণ ও মা-মেয়ের মাথা ন্যাড়া করার ঘটনায় সারাদেশে তোলপাড় শুরু হলে তার প্রশ্রয়দাতা হিসেবে মতিন সরকারকে যুবলীগ থেকে বহিস্কার করা হয়। সেই সাথে গা ঢাকা দেয় মতিন সরকার ও তুফান সরকারের সমর্থকরা। সম্প্রতি মতিন সরকার জামিনে মুক্ত হওয়ার পর জেলা শ্রমিকলীগের সাধারণ সম্পাদক সামছুদ্দিন শেখ হেলাল তাকে জেলগেটে ফুলেল সংবর্ধনা দেন।

এরপর মতিন সরকার দলবলসহ আওয়ামীলীগের কার্যালয়ে এলে তাকে নিয়ে গুঞ্জন ওঠে তিনি শহর আওয়ামী লীগে যোগ দিচ্ছেন। অবশেষে রোববার বিকেলে শত শত কর্মী-সমর্থক নিয়ে শহরে ব্যাপক শো-ডাউন করেন মতিন সরকার। পরে তিনি কর্মী-সমর্থকদের নিয়ে জেলা আওয়ামীলীগের আনন্দ র‌্যালীতে অংশ নেন।

জানাগেছে, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৭ই মার্চের ভাষনকে ইউনেস্কো বিশ্ব ঐতিহ্যের অংশ হিসেবে ঘোষণা করায় কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে জেলা আওয়ামীলীগ এই আনন্দ র‌্যালীর আয়োজন করে। জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি মমতাজ উদ্দিন র‌্যালীতে নেতৃত্ব দেন। এসময় দলের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

এই রকম আরও খবর দেখুন

সর্বশেষ আপডেট

অ্যার্কাইভ ক্যালেন্ডার
সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
৩১