পুঠিয়ার চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে গাছ কাটার অভিযোগ

পুঠিয়ার চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে গাছ কাটার অভিযোগ

নাসির আহম্মেদ/বিশেষ প্রতিনিধি : রাজশাহীর পুঠিয়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান জিএম হিরা বাচ্চুর বিরুদ্ধে নিয়মনীতি না মেনে সরকারি গাছ কেটে ফেলার অভিযোগ পাওয়া গেছে। গাছের কাঠ দিয়ে নিজের বাড়ির আসবাবপত্র তৈরিরও অভিযোগ স্থানীয়দের। তবে এসব অভিযোগ অস্বীকার করেছেন অভিযুক্ত চেয়ারম্যান।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, উপজেলা পরিষদের প্রধান গেটের ভেতরে চেয়ারম্যানের কার্যালয়ের সামনে সারিবদ্ধভাবে থাকা বেশ কয়েকটি গাছ কেটে ফেলা হয়েছে। গাছগুলো রাতের আঁধারে সরিয়ে ফেলা হয় উপজেলা পরিষদের পেছনের গেট দিয়ে। বিষয়টি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার (ইউএনও) অফিসের একজন কর্মকর্তা বুঝতে পারলে ইউএনওকে অবগত করেন।

শুক্রবার (১৭ সেপ্টেম্বর) সরেজমিনে ঘুরে দেখা যায়, উপজেলা পরিষদের ভেতরে গাছ কেটে ফেলে রাখা হয়েছে। বৃষ্টিপাতের কারনে কাটা গাছের গর্তে পানি জমে যায়। এছাড়া আসবাবপত্র তৈরির জন্য স্থানীয় একটি স-মিলে রাখা হয় বেশ কয়েকটি কাটা গাছ।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক স-মিলের কয়েকজন কর্মচারী জানান, উপজেলা পরিষদের গাছগুলো সম্প্রতি কেটে তাদের স-মিলে রাখা হয়েছে। চেয়ারম্যানের নির্দেশে তার প্রয়োজনীয় আসবাবপত্র তৈরির কাঠামো অনুসারে কাঠ চেরাই করা হবে।

তবে এসব অভিযোগ অস্বীকার করেছেন অভিযুক্ত পুঠিয়া উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান জিএম হিরা বাচ্চু। বলেন, গাছ কাটার অভিযোগ সঠিক নয়। আমি নিজেই দুই হাজার গাছ লাগিয়েছি। কেউ এ ধরণর কাজে জড়িত থাকলে তার বিরুদ্ধে আমি নিজেই কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করব।

এ বিষয়ে ইউএনও নূরুল হাই মোহাম্মদ আনাছ বলেন, গাছ কাটার সিদ্ধান্ত হয়েছিল। তবে নিয়ম মেনে গাছগুলো কাটা হয়নি।

এই রকম আরও খবর দেখুন

সর্বশেষ আপডেট

অ্যার্কাইভ ক্যালেন্ডার
সোমমঙ্গলবুধবৃহশুক্রশনিরবি
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০৩১