বাংলাদেশকে ৩৭০ রানের টার্গেট দিল দক্ষিণ আফ্রিকা

ক্রীড়া ডেস্ক: তিন ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজের শেষ ম্যাচে বাংলাদেশকে পাহাড়সম ৩৭০ রানের টার্গেট দিল দক্ষিণ আফ্রিকা। হোয়াইট ওয়াসের লজ্জা এড়াতে হলে বাংলাদেশকে এ ম্যাচে জিততেই হবে। এর আগে টস জিতে ব্যাটিংয়ে নেমে ঝড়ো সূচনা করেন দলের দুই ওপেনার টেম্বা বাভুমা ও কুইন্টন ডি কক। শেষ পর্যন্ত নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৬ উইকেট হারিয়ে ৩৬৯ রান সংগ্রহ করে দক্ষিণ আফ্রিকা। দলের পক্ষে ফাফ ডু প্লেসিস সর্বোচ্চ ৯১ রান করেন। বাংলাদেশের পক্ষে মেহেদি হাসান মিরাজ ও তাসকিন আহমেদ ২ উইকেট করে দখন করেন। টস জিতে ব্যাটিংয়ে নেমে ঝড়ো সূচনা করেন দলের দুই ওপেনার টেম্বা বাভুমা ও কুইন্টন ডি কক।১৫ ওভারে তারা বিনা উইকেটে ১০৪ রান তুলে ফেলে। ১১৯ রানে দক্ষিণ আফ্রিকার প্রথম উইকেটের পতন হয়। ক্যারিয়ারের প্রথম ওয়ানডেতে সেঞ্চুরি করা বাভুমা ৪৮ রানে মিরাজের বলে লিটনের হাতে ক্যাচ দেন। এর পর মিরাজের বলে এগিয়ে এসে মারতে গিয়ে বল হাওয়ায় ভাসিয়ে দেন কুইন্টন ডি কক। নিজের বোলিংয়ে নিজেই ক্যাচ নেন মিরাজ। টেম্বা বাভুমার পর আরেক উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান ডি কককে সাচঘরে ফেরত পাঠালেন ডানহাতি এ স্পিনার। ৬৮ বলে ৭৩ রান করে সাজঘরে ফিরেন ডি কক। সেঞ্চুরির খুব কাছাকাছি এসে ফিরে যেতে হল ফাফ ডু প্লেসিকে। কোমড়ে টান লাগায় মাঠ থেকে বেরিয়ে যান দক্ষিণ আফ্রিকার অধিনায়ক। মাশরাফির বল মিড উইকেটে পাঠিয়ে রান নিতে গিয়ে কোমড়ে টান লাগে। ডেভিড মিলারের কাঁধে চড়ে ডু প্লেসি মাঠ ছাড়েন ৯১ রানে। অভিষেকে দ্যুতি ছড়ানো আইডেন মার্করাম ব্যক্তিগত ৬৬ রান করে রান আউটে কাটা পড়েন। ইমরুল কায়েসের থ্রো সরাসরি স্ট্যাম্প ভাঙে। চতুর্থ ব্যাটসম্যান হিসেবে আউট হন এবি ডি ভিলিয়ার্স (২৫)। রুবেল হোসেনের বলে মাশরাফির হাতে ধরা পড়েন তিনি। এর আগে আজ রবিবার দুপুরে টস জিতে শুরুতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন দক্ষিণ আফ্রিকার অধিনায়ক ফাফ ডু প্লেসিস। আগের ম্যাচগুলোতে টস ভাগ্যে বাংলাদেশ জিতলেও এবার হেরে যান মাশরাফি। তাই টাইগারদের শুরুতে বল হাতে নামতে হয়েছে মাঠে। প্রথম দুই ম্যাচ হেরে ইতোমধ্যেই সিরিজ হাতছাড়া হয়ে গেছে টাইগারদের। আজকের ম্যাচে হারলে টেস্ট সিরিজের মতো ওয়ানডেতেও হোয়াইটওয়াশের লজ্জায় পড়তে হবে মাশরাফি বাহিনীকে।

এই রকম আরও খবর দেখুন

সর্বশেষ আপডেট

অ্যার্কাইভ ক্যালেন্ডার
সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯৩০৩১