সাংবাদিককে মারধরের ঘটনায় সার্জেন্ট ক্লোজড

নিজস্ব প্রতিনিধি : রাজধানীর মৎস্য ভবনের সামনে ট্রাফিক পুলিশের সার্জেন্ট মুস্তাইন এর হাতে মারধরের শিকার হলেন এক ফটো সাংবাদিক। বুধবার বিকেলে সাড়ে ৪টার দিকে মুস্তাইন নামে ওই সার্জেন্ট তাকে মারধর করেন। এ ঘটনায় সার্জেন্টকে ক্লোজড করা হয়েছে।

ভুক্তভোগী ওই সাংবাদিকের নাম নাসির উদ্দিন। তিনি মানবজমিন পত্রিকায় ফটো সাংবাদিক হিসেবে কর্মরত। তিনি জানান, প্রেস ক্লাব থেকে অফিসে যাওয়ার পথে মৎস্য ভবনের সামনে তাকে আটকে গাড়ির কাগজপত্র দেখতে চান সার্জেন্ট মুস্তাইন। কাগজপত্র ঠিক থাকলেও তার সঙ্গে হেলমেট না থাকায় একটি মামলা দিতে চান সার্জেন্ট। মামলা না দেয়ার অনুরোধ করলেও তিনি শোনেননি এবং মামলা দেন। এ সময় নাসির ব্যাগ থেকে ক্যামেরা বের করার সঙ্গে সঙ্গে তার জামার কলার ধরে চড়-থাপ্পড় মেরে পুলিশ বক্সে নিয়ে যান ওই সার্জেন্ট। সাংবাদিক নাসির বলেন, ‘আমি সার্জেন্টকে জানাই তিন-চারদিন আগে আমার হেলমেট চুরি হয়েছে। বেতন পেলে কিনব। কিন্তু তিনি কোনো কথা না শুনেই আমাকে মামলা দেন।’তিনি আরও বলেন, আমি নাকি হলুদ সাংবাদিক।

এ সময় আমি ব্যাগ থেকে ক্যামেরা বের করতে চাইলে তিনি আমার হাত থেকে ক্যামেরা নিয়ে আরেক পুলিশ কর্মকর্তাকে দেন এবং আমাকে মারধর করেন। পরে সিনিয়র সাংবাদিকরা এসে আমাকে উদ্ধার করে নিয়ে যান। এ বিষয়ে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) ট্রাফিক-দক্ষিণ বিভাগের উপ-কমিশনার (ডিসি) রিফাত রহমান শামীম বলেন, আমার নির্দেশনায় ট্রাফিক-দক্ষিণের সহকারী কমিশনার (এসি) ঘটনাস্থলে তদন্তের জন্য যান। প্রাথমিক তদন্তে সার্জেন্ট মুস্তাইনের ‘অসৌজন্যমূলক আচরণ’ পাওয়া গেছে। এজন্য তাকে ক্লোজড করা হয়েছে। পূর্ণাঙ্গ তদন্তের পর তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে। এদিগে মুস্তাইন এর এই আচরনে সাংবাদিক মহল সহ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে নিন্দার ঝড় উঠেছে।

এই রকম আরও খবর দেখুন

সর্বশেষ আপডেট

অ্যার্কাইভ ক্যালেন্ডার
সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯৩০